,

মিরপুরে জোড়া খুন; সেই ফ্ল্যাটে আনাগোনা ছিল অপরিচিত তরুণ-তরুণীদের

রাজধানীর মিরপুরে গৃহকর্মীসহ বৃদ্ধা খুন হওয়ার ঘটনার রহস্য উদ্ঘাটন শুরু করেছে পুলিশ। মিরপুর-২ সেকশনের ‘বি’ ব্লকের ২ নম্বর রোডের ১১ নম্বর বাসার চতুর্থ তলার ওই ফ্ল্যাটে অপরিচিত অনেক তরুণ-তরুণীর আনোগোনা ছিল বলে জানিয়েছেন ডিএমপি’র অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ) কৃষ্ণপদ রায়।

তিনি জানিয়েছেন সেখানে অনৈতিক কার্যকলাপ চলতো বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা। এক প্রতিবেদনে তার বরাতে এমন তথ্য জানিয়েছে যুগান্তর।

কৃষ্ণপদ রায় বলেন, ‘রাজধানীর মিরপুরের ওই ফ্ল্যাটে অনেক অপরিচিত তরুণ-তরুণীর আনাগোনা ছিল। স্থানীয়রা মনে করছেন, সেখানে অনৈতিক কার্যকলাপ চলত। বিষয়টি নিয়েও তদন্ত শুরু হয়েছে। কাজের মেয়েকে নিয়েই রহিমা ওই বাসায় থাকতেন। মাঝেমধ্যে সোহেল ও রহিমার দ্বিতীয় স্বামী কুদ্দুস মিয়া আসতেন।’

গতকাল ৩ ডিসেম্বর, মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে মিরপুর-২ সেকশনের ‘বি’ ব্লকের ২ নম্বর রোডের ১১ নম্বর বাসার চতুর্থ তলার ওই ফ্ল্যাট থেকে বৃদ্ধা রহিমা বেগম (৬০) ও তার গৃহকর্মী সুমির লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত গৃহকর্মী সুমির বাড়ি পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার বাদুড়তলায় বলে জানা গেছে।

এ ঘটনায় নিহত রহিমা বেগমের কথিত পালিত ছেলে সোহেলকে আটক করা হয়েছে।

জোড়া খুনের সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে যান র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-র‌্যাব ও ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ-ডিএমপি’র ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে সিআইডির ক্রাইমসিন ইউনিটও। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) একটি টিম এ ঘটনার ছায়াতদন্ত শুরু করে।

ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ) কৃষ্ণপদ রায় এ বিষয়ে বলেন, ‘হত্যাকাণ্ডের আলামত সংগ্রহ করা হচ্ছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, দুজনকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।’

তিনি জানান, দুই কক্ষবিশিষ্ট ওই বাসার বিছানাসহ জিনিসপত্র সব এলোমেলো অবস্থায় ছিল। এ ঘটনায় সোহেল নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। সোহেলকে রহিমার ‘পালিত ছেলে’ হিসেবে প্রতিবেশীরা চিনতো বলেও জানান তিনি। তার সম্পর্কে বিস্তারিত জানার চেষ্টা চলছে।

এই পুলিশ কর্মকর্তা আরো বলেন, ‘ওই বাসায় অনেক অপরিচিত তরুণ-তরুণীর আনাগোনা ছিল। স্থানীয়দের ধারণা, সেখানে অনৈতিক কার্যকলাপ চলত। বিষয়টি নিয়েও তদন্ত শুরু হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘কাজের মেয়েকে নিয়েই রহিমা ওই বাসায় থাকতেন। মাঝেমধ্যে সোহেল ও রহিমার দ্বিতীয় স্বামী কুদ্দুস মিয়া আসতেন।’

স্থানীয়দের বরাতে তিনি জানান, গত রবিবার এই বাসায় কাজে যোগ দেয় সুমি। এর আগে সুমির পরিচিত (খালা) এখানে কাজ করতেন। ছয় মাস আগে এই ফ্ল্যাটটি ভাড়া নেন রহিমা বেগম।











     এই বিভাগের আরও খবর

পুরাতন খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১