,

যশোর জুড়ে রোহিঙ্গা শিশু পাচারকারী আতঙ্কে -প্রশাসনের ব‍্যাপক নজরদারি 

শাহারিয়ার  হুসাইন:  যশোর থেকে গত কয়েক দিন ধরে শিশু পাচারকারী আতঙ্কে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে গোটা যশোর জেলা জুড়ে। শিশু পাচারকারী সহ হাতেনাতে ধরা পড়েছে বেশ কিছু নারী ও পুরুষ।

ধরা পড়া নারী ও পুরুষের মধ্যে অনেকেই মায়ানমার থেকে আগত রহিঙ্গা   বলে আলোচনায় এসেছে। যশোর জেলার  শার্শা,  বেনাপোল, ঝিকরগাছা, মনিরামপুর সহ পুরো জেলা জুড়ে ছেলে ধরা শিশু পাচারকারী আতঙ্ক বিরাজ করছে। সেই সাথে অভিভাবক মহলে চলছে এক চাপা আতঙ্ক উত্তেজনা।

বিষয়টি কেউ কেউ গুজব বলে উড়িয়ে দিলেও বাস্তবে তা এখন ভয়বহতায় রুপ নিয়েছে। সরেজমিনে বিভিন্ন এলাকার তথ্য মতে জানা যায়, যশোরের বিভিন্ন উপজেলাতে রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ বিভিন্ন ছদ্মবেশে গ্রামীন পল্লীতে প্রবেশ করে বিভিন্ন খাবার, দড়ি এবং অজ্ঞান করা বা চেতনা নাশক স্প্রে ব্যবহার করে বিভিন্ন বয়সী শিশুদেরকে নিয়ে পালিয়ে যাচ্ছে।


ধরা পড়লে কারো কারো পিটিয়ে ছেড়ে দিচ্ছে আবার কারো কারো পিটিয়ে আটকে রেখে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হচ্ছে। যশোরের শার্শা উপজেলা থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার একই দিনে পরপর দুই রোহিঙ্গা নারী পুরুষকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় এখন চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে এলাকার মানুষের মাঝে। ছোট ছোট কোমলমতি শিশুদের মাঝে ছড়িয়ে পড়েছে এক চরম উত্তেজনা। ছোট ছোট শিশু সহ সব শ্রেণির মানুষের মাঝে এখন একটাই আলোচনা রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ ছেলে ধরা শিশু পাচারকারী বিষয় নিয়ে। শার্শা থানা পুলিশের এসআই হাসান আলীর হাতে রোহিঙ্গা এক ব্যক্তিকে তুলে দেয়ার সময় এ বিষয়ে তিনি বলেন, শিশু পাচার বা ছেলে ধরা আতঙ্ক পুরো যশোর জেলায় ছড়িয়ে পড়েছে তাই সকলকে সচেতন হতে হবে সজাগ থাকতে হবে। কোনো অপরিচিত নারী বা পুরুষকে দেখলে যেন তৎক্ষণাৎ ভাবে পুলিশের কাছে জানানো হয় সে বিষয়ে তিনি জোর দাবি জানান ।

image_pdfimage_print











     এই বিভাগের আরও খবর

আমরা আছি ফেসবুকে